খারাপ স্বপ্ন দেখলে কী করবেন?

জিজ্ঞাসা–৫৯১খারাপ স্বপ্ন  দেখলে কী করা উচিত? আমি স্বপ্ন দেখেছি, আমার দামি ব্যাগটি চুরি হয়ে গেছে। এর তিন দিন পর আমার ০৭ মাসের ছেলে সন্তানটি মারা যায়।– Muhammad Ahidur Rahman

জবাব: মূলত এজাতীয় ভীতিকর স্বপ্ন শয়তানের পক্ষ থেকে হয়। এক্ষেত্রে সুন্নত হল, উক্ত স্বপ্নের ক্ষতি ও অনিষ্ট থেকে আল্লাহর কাছে আশ্রয় প্রার্থনা করা ( যথা আউজুবিল্লাহি মিনাশ শাইতানির রাজিম পড়া), বাঁ দিকে তিনবার থুথু নিক্ষেপ করা, স্বপ্নটির কথা কারো কাছে না বলা। অনুরুপভাবে যে কাতে ঘুমিয়ে খারাপ স্বপ্ন দেখেছে, তা পরিবর্তন করে অন্য কাতে শোয়া এবং দু’ চার রাকাত নামায পড়ে নেয়ার কথাও হাদিসে আছে। যেমন,  এ মর্মে আবূ সালামা রহ. থেকে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি এমন স্বপ্ন দেখতাম যা আমাকে রোগাক্রান্ত করে ফেলত। অবশেষে আমি আবূ কাতাদা রাযি.-কে বলতে শুনেছি, তিনি বলেন, আমি এমন স্বপ্ন দেখতাম যা আমাকে রোগাক্রান্ত করে ফেলত। অবশেষে আমি রাসূলুল্লাহ -কে বলতে শুনেছি,

الرُّؤْيَا الْحَسَنَةُ مِنَ اللَّهِ، فَإِذَا رَأَى أَحَدُكُمْ مَا يُحِبُّ فَلاَ يُحَدِّثْ بِهِ إِلاَّ مَنْ يُحِبُّ، وَإِذَا رَأَى مَا يَكْرَهُ فَلْيَتَعَوَّذْ بِاللَّهِ مِنْ شَرِّهَا، وَمِنْ شَرِّ الشَّيْطَانِ وَلْيَتْفِلْ ثَلاَثًا وَلاَ يُحَدِّثْ بِهَا أَحَدًا فَإِنَّهَا لَنْ تَضُرَّهُ

ভাল স্বপ্ন আল্লাহর পক্ষ থেকে হয়ে থাকে। তাই যখন কেউ পছন্দনীয় কোন স্বপ্ন দেখে তখন এমন ব্যাক্তির কাছেই বলবে, যাকে সে পছন্দ করে। আর যখন অপছন্দনীয় কোন স্বপ্ন দেখে তখন যেন সে এর ক্ষতি ও শয়তানের ক্ষতি থেকে আল্লাহর আশ্রয় চায় এবং তিনবার থু থু ফেলে আর সে যেন তা কারো কাছে বর্ণনা না করে। তাহলে এ স্বপ্ন তার কোন ক্ষতি করবে না। (বুখারী ৬৫৬৮ মুসলিম ৬০৪০)

মুসলিমের বর্ণনায় এসেছে, আবূ সালামা রহ. বলেন,

إن كنت لأرى الرؤيا أثقل على من جبل ؛ فما هو إلا أن سمعت بهذا الحديث فما أباليها

আমি স্বপ্নে দেখতাম, যা পাহাড় থেকেও ভারি হত। কিন্তু আমি হাদিসটি শুনার পর থেকে এর পরওয়া করি না।

এই উম্মতের স্বপ্ন ব্যাখ্যাকার হিসেবে সবচেয়ে বেশি প্রসিদ্ধি লাভ করেছিলেন বিশিষ্ট তাবিঈ মুহাম্মাদ ইবন সীরীন রহ.। তাঁকে কেউ স্বপ্নের ব্যাখ্যা জিজ্ঞেস করলে তিনি উপদেশ দিতেন যে,

اتق الله وأحسن في اليقظة , فإنه لا يضرك ما رأيت في النوم

আল্লাহকে ভয় কর। জাগ্রতাবস্থায় নেক আমল কর। কেননা, ঘুমে তুমি যা দেখেছ তা তোমার ক্ষতি করতে পারে না। (আল আদাবুশ শারইয়্যাহ ৩/৪৫১)

والله اعلم بالصواب

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 5 =