দুগ্ধপোষ্য শিশুর মায়ের রোজা

জিজ্ঞাসা–৩৩১: আসসালামুয়ালাইকুম ওয়া রহমাতুল্লাহ। আমার বাচ্চার বয়স ১৪ মাস। সে এখনো বুকের দুধ পান করে, এমতাবস্থায় তার মায়ের সাওম পালনের শর্ত কি?–মোঃ রকিবুল হাসান: [email protected]

জবাব: وعليكم السلام ورحمة الله وبركاته

দুগ্ধপানকারিনী মায়ের দুইটি অবস্থা হতে পার–

১. রোজা রাখার দ্বারা তার স্বাস্থ্যের উপর কোন প্রভাব না পড়া। অর্থাৎ তার জন্য রোজা রাখাটা কষ্টকর না হওয়া এবং তার সন্তানের জন্যেও আশংকাজনক না হওয়া। এমন নারীর উপর রোজা রাখা ফরজ; তার জন্য রোজা ভাঙ্গা নাজায়েয।

২. রোজা রাখলে তার নিজের স্বাস্থ্য অথবা সন্তানের স্বাস্থ্যের ক্ষতি হওয়ার আশংকা করা এবং তার জন্যে রোজা রাখাটা কষ্টকর হওয়া। এমন নারীর জন্য রোজা না-রাখা জায়েয আছে; তিনি এ রোজাগুলো পরবর্তীতে কাযা পালন করবেন। বরং অবস্থায় এ নারীর জন্য রোজা না-রাখাই উত্তম; রোজা রাখা মাকরূহ।

হাদীস শরীফে এসেছে, নবীজীবলেছেন, 

إِنَّ اللهَ عَزَّ وَجَلَّ وَضَعَ عَنْ الْمُسَافِرِ شَطْرَ الصَّلَاةِ وَعَنْ الْمُسَافِرِ وَالْحَامِلِ وَالْمُرْضِعِ الصَّوْمَ

আল্লাহ্ তাআলা মুসাফির থেকে অর্ধেক নামাজ হ্রাস করেছেন এবং মুসাফির, গর্ভবতী ও স্তন্যদানকারিণীকে রোজা রাখার ব্যাপারে অবকাশ দিয়েছেন। (সুনানে ইবন মাজাহ ১৬৬৭, তিরমিযী ৭১৫, নাসায়ী ২২৭৪, ২২৭৬, ২৩১৫, আবূ দাউদ ২৪০৮)

والله اعلم بالصواب
উত্তর দিয়েছেন
মাওলানা উমায়ের কোব্বাদী