ব্যবসায় মুদারাবা পদ্ধতির সঠিক ব্যবহার

জিজ্ঞাসা–১৪৫৬: আমার এক বন্ধুর ফ্লাক্সিলোডের দোকান আছে। এখন সে বিকাশের ব্যাবসা করার জন্য এবং কনফেকশনারীর মালামাল উঠানো জন্য আমার কাছ থেকে এই বলে টাকা চেয়েছিলো যে ব্যাবসায় যা লাভ হবে ৫০% করে ভাগ দেবো। আমি ওকে বললাম শুধু লাভের অংশ নয় সাথে ক্ষতির অংশও যদি আমার উপরে আসে তাহলে দেব। সে বললো আচ্ছা লাভ-লোকসানের নিরীখে ভাগ হবে। এখন আমি ওকে টাকা দিয়েছি এবং লাভ-লোকসান হিসেবে লভ্যাংশ নিচ্ছি বা ক্ষতিপূরণ দিচ্ছি। এখন আমার প্রশ্ন হচ্ছে, এই কারবার (ব্যবসা) কি জায়েয আছে ? উত্তরটি পেলে আমি খুবিই উপকৃত হবো।–মাহমুদুল হাসান।

জবাব: প্রশ্নোক্ত লাভ বণ্টনের চুক্তিটি সহীহ হয়েছে। কিন্তু লোকসানের ক্ষেত্রে একই হারে কেটে নেওয়ার চুক্তিটি সহীহ হয় নি। কেননা আপনি তার সাথে যে চুক্তিটি করেছেন ফিকহের পরিভাষায় একে মুদারাবা বলে। মুদরাবার ক্ষেত্রে নিয়ম হল, ব্যবসায়ে মুনাফা হলে পূর্ব চুক্তি অনুসারে বা আনুপাতিক হারে উভয়পক্ষের মাঝে মুনাফা বণ্টিত হয় এবং ব্যবসায় লোকসান হলে মূলধন সরবরাহকারী বা সাহিব-আল-মাল উক্ত লোকসান বহন করে। অন্যদিকে, ব্যবসায় পরিচালনাকারী বা মুদারিব তার মেধা ও শ্রমের বিনিময়ে কোনো পারিশ্রমিক পায় না, যা তার লোকসান হিসেবে গণ্য হয়। তবে যদি মুদারিব কর্তৃক নিয়ম লঙ্ঘন, অবহেলা বা চুক্তিভঙ্গের কারণে লোকসান হয় তাহলে মুদারিবকেই লোকসানের দায় বহন করতে হয়। (বাদায়েউস সানায়ে ৫/১১৯ মাজাল্লাতুল আহকামিল আদলিয়া, মাদ্দাহ  ১৩৬৯ রদ্দুল মুহতার ৫/৬৪৮)

والله أعلم بالصواب