সদকা মৃত-ব্যক্তির উপকারে আসে কি?

জিজ্ঞাসা–২৪০: মৃত ব্যক্তির জন্য সদকা করলে তার কোনো ফায়দা হয় কি?–faruque: [email protected]

জবাব: হাদীস দ্বারা প্রমাণিত যে, জীবিতদের কেউ মৃত ব্যক্তির জন্য সদকা করলে তার সাওয়াব সে পেতে থাকে। সাহাবায়ে কেরাম তাঁদের পিতা-মাতার মৃত্যুর পর তাঁদের জন্য সাদাকায়ে জারিয়ার ব্যবস্থা করতেন। যেমন- ফসলের বাগান ওয়াকফ করতেন, পানির কূপ খনন করে দিতেন ইত্যাদি।

এমর্মে তিনটি বর্ণনা পেশ করা হল–
১. আবু হুরায়রা রাযি. হতে বর্ণিত,
 عَنْ أَبِي هُرَيْرَةَ أَنَّ رَجُلًا قَالَ لِلنَّبِيِّ صَلَّى اللَّه عَلَيْهِ وَسَلَّمَ إِنَّ أَبِي مَاتَ وَتَرَكَ مَالًا وَلَمْ يُوصِ فَهَلْ يُكَفِّرُ عَنْهُ أَنْ أَتَصَدَّقَ عَنْهُ قَالَ نَعَمْ

‘এক ব্যক্তি ﷺ এর নিকট জানতে চাইলেন যে, আমার পিতা কিছু সম্পদ রেখে মারা গেছেন কিন্তু তিনি কোনো ওসীয়ত করে যান নি। আমি কি তাঁর জন্য কিছু সদকা করতে পারি; যাতে তাঁর গুনাহের কাফফারা হতে পারে? তিনি বললেন, হ্যা পার।’’ (মুসলিম ৩০৮১)

২. অপর এক হাদীসে এসেছে ,
 عَنْ سَعْدِ ابْنِ عُبَادَةَ قَالَ قُلْتُ يَا رَسُولَ اللَّهِ إِنَّ أُمِّي مَاتَتْ أَفَأَتَصَدَّقُ عَنْهَا قَالَ نَعَمْ قُلْتُ فَأَيُّ الصَّدَقَةِ أَفْضَلُ قَالَ سَقْيُ الْمَاءِ
‘‘সা‘দ ইবন ‘উবাদাহ রাযি. হতে বর্ণিত, তিনি বলেন, আমি বললাম, ইয়া রাসূলুল্লাহ ﷺ, আমার আম্মা মারা গেছেন। আমি কি তাঁর জন্য কিছু সদকা করতে পারি? তিনি বললেন, হ্যাঁ পার। আমি বললাম, কোন সদকা উত্তম? তিনি বলরেন, পানি পান করানো (অর্থাৎ কূপ খনন করে দেয়া)।’’ (নাসাঈ ৩৬০৪)
৩. অপর এক হাদীসে এসেছে ,
أَنَّ سَعْدَ بْنَ عُبَادَةَ رَضِي اللَّه عَنْه تُوُفِّيَتْ أُمُّهُ وَهُوَ غَائِبٌ عَنْهَا فَقَالَ يَا رَسُولَ اللَّهِ إِنَّ أُمِّي تُوُفِّيَتْ وَأَنَا غَائِبٌ عَنْهَا أَيَنْفَعُهَا شَيْءٌ إِنْ تَصَدَّقْتُ بِهِ عَنْهَا قَالَ نَعَمْ قَالَ فَإِنِّي أُشْهِدُكَ أَنَّ حَائِطِيَ الْمِخْرَافَ صَدَقَةٌ عَلَيْهَا
‘‘সা‘দ ইবন ‘উবাদাহ রাযি. এর মা তার অনুপস্থিতিতে মারা যান। পরে তিনি বললেন, ইয়া রাসূলুল্লাহ ﷺ, আমার অনুপস্থিতিতে আম্মা মারা গেছেন। আমি যদি তাঁর জন্য কিছু সদকা করি তবে কি তা তাঁর উপকারে আসবে ? তিনি বললেন, হ্যা। তিনি বললেন, আপনি সাক্ষী, আমার মিখরাফ নামক বাগানটি তাঁর জন্য সদকা করলাম।’’ (বুখারী ২৫৫১)
والله اعلم بالصواب
উত্তর দিয়েছেন
মাওলানা উমায়ের কোব্বাদী
[email protected]

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

2 × 5 =